Wednesday, June 16, 2021

ভাঙ্গুড়ায় ভ্রাম্যমাণ অ্যান্টিজেন টেস্টে ৪ জন পজিটিভ

 

ভাঙ্গুড়া (পাবনা) প্রতিনিধি দেশের উত্তরাঞ্চলে সম্প্রতি করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় উদ্বিগ্ন রাজশাহী বিভাগের ৮ টি জেলার মানুষ। এসব জেলায় প্রতিদিনই করোনা শনাক্ত বাড়ছে। তাই আগে থেকেই সতর্ক থাকতে পাবনার ভাঙ্গুড়ায় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের উদ্যোগে করোনার ভ্রাম্যমাণ অ্যান্টিজেন টেস্ট পরীক্ষা শুরু হয়েছে। এই কার্যক্রমের সার্বিক দেখভাল করছেন ভাঙ্গুড়া পৌর কর্তৃপক্ষ।

বুধবার সকালে ভাঙ্গুড়া পৌর মেয়র গোলাম হাসনাইন রাসেল এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন। এদিন ভাঙ্গুড়া বাসস্ট্যান্ড ও সিএনজি স্ট্যান্ডে দুইটি বুথ স্থাপন করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্যকর্মীরা অ্যান্টিজেন টেস্ট শুরু করে। এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাক্তার হালিমা খানম, থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহম্মদ আনোয়ার হোসেন ও উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তারা। সকাল দশটা থেকে শুরু হওয়া এ কার্যক্রমে চার ঘন্টায় ৭৫ জনের করোনা পরীক্ষা করা হয়। এতে ৪ জনের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়।এদের মধ্যে হোটেল কর্মী ও সিএনজি চালক রয়েছে। প্রতিদিন সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত এই কার্যক্রম চলবে। উল্লেখ্য, করোনা সংক্রমনের শুরু থেকেই ভাঙ্গুড়া পৌরসভার উদ্যোগে শহরের দশটি স্থানে সাবান পনি দিয়ে হাত ধোয়ার ব্যবস্থা এবং শহরে প্রবেশের পাঁচটি প্রধান সড়কে চলাচলকারীদের বিধিনিষেধ মেনে চলতে স্বেচ্ছাসেবীদের দিয়ে তদারকি কর্মসূচি চালু রয়েছে। ভাঙ্গুড়া টেকনিক্যাল এন্ড বিজনেস ম্যানেজমেন্ট কলেজের অধ্যক্ষ বদরুল আলম বলেন, করোনা সংক্রমনের শুরু থেকেই ভাঙ্গুড়া পৌর শহর সহ সম্পূর্ণ উপজেলার মানুষকে সুরক্ষিত রাখতে মেয়র গোলাম হাসনাইন রাসেল স্থানীয় প্রশাসনকে সঙ্গে নিয়ে তৎপর রয়েছেন। মেয়রের উদ্যোগেই পাবনায় উপজেলা পর্যায়ে সর্বপ্রথম করোনার ভ্রাম্যমাণ অ্যান্টিজেন টেস্ট শুরু হয়েছে। এতে ভাঙ্গুড়ার মানুষ তুলনামূলক অনেক সুরক্ষিত থাকবে বলে মনে করি। পৌর মেয়র গোলাম হাসনাইন রাসেল বলেন, করোনা ভইরাস থেকে দেশবাসীকে সুরক্ষিত রাখতে সরকার আপ্রাণ চেষ্টা করে যাচ্ছে। তাই সরকারের নির্দেশ বাস্তবায়ন করে ভাঙ্গুড়াবাসীকে সুস্থ রাখার জন্য স্বাস্থ্যবিধি সম্পর্কে সচেতন করার পাশাপাশি এই ভ্রাম্যমাণ অ্যান্টিজেন টেস্ট চালু করা হয়েছে। যাতে কেউ আক্রান্ত হলে দ্রুত শনাক্ত করে তাকে হোম কোয়ারেন্টিনে রেখে অন্যদেরকে সুরক্ষিত রাখা যায়।


শেয়ার করুন