Monday, January 4, 2021

এমপির দেয়া সেলাই মেশিনে ২৩ পরিবারে আসবে স্বচ্ছলতা | ভাঙ্গুড়ার আলো

ভাঙ্গুড়া (পাবনা) প্রতিনিধি

পাবনা- আসনের (চাটমোহর ভাঙ্গুড়া ফরিদপুর) গরীব মেধাবী ২৩ কলেজ ছাত্রীর মাঝে সেলাই মেশিন বিতরণ করা হয়েছে। আজ সোমবার স্থানীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মকবুল হোসেন ভাঙ্গুড়া পৌরসভার সরদার পাড়া মহল্লার নিজ বাসভবনে সংক্ষিপ্ত এক অনুষ্ঠানে এই সেলাই মেশিন বিতরণ করেন। এই সেলাই মেশিন দিয়ে অর্থ উপার্জন করে সংসারের স্বচ্ছলতা আনার চেষ্টা করবেন বলে জানান এসব কলেজ ছাত্রীরা। এদিন অনুষ্ঠানে এই সংসদীয় আসনের দলীয় নেতাকর্মীসহ স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

 

জানা যায়, মহিলা শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় চলতি অর্থবছরে পাবনা- আসনের ২৩ জন গরীব মেধাবী কলেজ ছাত্রীকে সেলাই মেশিন দেওয়ার জন্য অর্থ বরাদ্দ দেয়। এরপর সংসদ সদস্যের নির্দেশে বিভিন্ন কলেজের অধ্যক্ষের মাধ্যমে প্রকৃত দুস্থ অসহায় পরিবারের এইচএসসি স্নাতক পড়ুয়া ছাত্রীদেরকে চিহ্নিত করা হয়। পরে এসব কলেজ ছাত্রীদের মধ্যে সেলাই কাজে পারদর্শীদের অগ্রাধিকার ভিত্তিতে তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়। সেলাই মেশিন পাওয়া প্রত্যেক কলেজ ছাত্রীর অভিভাবক দিনমজুরি করে সংসারের জীবিকা নির্বাহ করেন। এতে সেলাই কাজের মাধ্যমে এই কলেজ ছাত্রীরা পরিবারে আর্থিক স্বচ্ছলতা আনতে সক্ষম হবে বলে ধারণা সংশ্লিষ্টদের। উপলক্ষে আজ সোমবার দুপুরে স্থানীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মকবুল হোসেন নিজ বাসভবনে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সংক্ষিপ্ত একটি অনুষ্ঠানে সেলাই মেশিনগুলো বিতরণ করেন।

সেলাই মেশিন নেওয়া ভাঙ্গুড়া মহিলা ডিগ্রী কলেজের এইচএসসি দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী লিমা খাতুন বলেন, 'অটোভ্যান চালিয়ে আমার বাবা চার সদস্যের সংসার চালান। এতে বাবার পক্ষে তাদের দুই বোনের পড়াশোনার খরচ চালানো খুবই কষ্টসাধ্য হয়ে পড়েছে। কারণে বেশ কিছুদিন আগেই উপজেলা মহিলা বিষয়ক অফিসে প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দর্জি শিক্ষা নিয়েছি। কিন্তু টাকার অভাবে সেলাই মেশিন কিনতে না পারায় অর্থ উপার্জন করতে পারিনি। এখন এই সেলাই মেশিনের মাধ্যমে গ্রামের অন্যান্য মানুষের কাজের অর্ডার নিয়ে পরিবারের স্বচ্ছলতা আনতে পারব।'

সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মকবুল হোসেন বলেন, বর্তমান সরকার জনকল্যাণে নানামুখী কাজ করে যাচ্ছে। দেশের অবকাঠামোগত উন্নয়নের সঙ্গে সঙ্গে মানুষের জীবনমানের উন্নতি হচ্ছে। প্রতিটি মানুষ যেন তাদের নাগরিক সুবিধা নিশ্চিন্তে ভোগ করতে পারে সেজন্য বর্তমান সরকারের নির্দেশে প্রশাসনের সকল দপ্তর প্রতিনিয়ত কাজ করে যাচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় এলাকার গরিব মেধাবী শিক্ষার্থীদের সেলাই মেশিন বিতরণের মাধ্যমে পরিবারগুলোকে সহযোগিতা করার চেষ্টা করা হয়েছে। যাতে পরিবারগুলো আর্থিক সচ্ছলতা অর্জনের পাশাপাশি এই কলেজ ছাত্রীরা আগামী দিনের  জন্য নিজেদেরকে কর্মঠ মেধাবী হিসেবে গড়ে তুলতে পারে।


শেয়ার করুন