Saturday, June 27, 2020

২০২০-২১ অর্থবছরের ভাঙ্গুড়া পৌরসভার বাজেট ঘোষণা


(অনলাইন ডেস্ক)
করোনা প্রাদুর্ভাবের কারণে কোনো প্রকার আনুষ্ঠানিকতা ছাড়াই পাবনার ভাঙ্গুড়া পৌরসভার ২০২০-২১ অর্থবছরের বাজেট ঘোষণা করা হয়েছে। পৌর মেয়র গোলাম হাসনাইন রাসেল এই বাজেট ঘোষণা করেন। এটি ভাঙ্গুড়া পৌরসভার ২১ তম বাজেট।

ভাঙ্গুড়া পৌরসভার সচিব উত্তম কুমার বলেন, করোনা পরিস্থিতির কারণে কোনো প্রকার আনুষ্ঠানিকতা ছাড়াই আগামী অর্থবছরের বাজেট ঘোষণা করা হয়েছে। বাজেট অনুষ্ঠানে কোনো আমন্ত্রিত অতিথি ছিলনা। ঘোষিত বাজেট গত বৃহস্পতিবার প্রস্তুত করে অনলাইনের মাধ্যমে সংশ্লিষ্ট সকলকে জানানো হয়েছে।

পৌরসভার কোষাধক্ষ্য নাজমুল হুদা জানায়, আগামী অর্থবছরের জন্য ভাঙ্গুড়া পৌরসভার রাজস্ব ও উন্নয়ন খাতে প্রস্তাবিত আয় ধরা হয়েছে ২১ কোটি ৭০ লাখ টাকা এবং ব্যয় ধরা হয়েছে ২১ কোটি ৬১ লাখ ৯২ হাজার ২৯৪ টাকা। বাজেটে রাজস্ব খাতে সমাপনী স্থিতি দেখানো হয়েছে ৮ লাখ ৭ হাজার ৭০৬ টাকা। তবে পৌরসভার উন্নয়ন ও প্রকল্প খাতে কোনো সমাপনী স্থিতি নেই।  ঘোষিত বাজেটে পৌরবাসীর জন্য উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড, স্যানিটেশন, পৌরসভা আলোকিতকরণ, পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতার জন্য ডাস্টবিন স্থাপন, সুপেয় পানি সরবরাহ ও জনকল্যাণমূলক আজকে অগ্রাধিকার দেওয়া হয়েছে।

ভাঙ্গুড়া পৌরসভার বাজেট সম্পর্কে বিশিষ্ট জনেরা বলেন, গত অর্থবছরে পৌর মেয়র গোলাম হাসনাইন রাসেল শহরের বাসিন্দাদের চাওয়া পাওয়া অনেকটাই পূরণ করেছেন। শহরের প্রায় সকল প্রধান সড়ক সংস্কার করেছেন এবং বিভিন্ন মহল্লায় নতুন নতুন সড়ক নির্মাণ করেছেন। এসব সড়কের সংস্কার ও নির্মাণ কাজ অত্যন্ত ভালো হয়েছে। যা টেকসই উন্নয়নের দৃষ্টান্ত। এছাড়া শহরের বিনোদনের জন্য বিভিন্ন উদ্যোগ বাস্তবায়ন করেছেন মেয়র। উন্নয়নের এই ধারা অব্যাহত থাকলে খুব তাড়াতাড়ি ভাঙ্গুড়া পৌরশহর দেশের মডেল পৌর শহরে পরিণত হবে।

ভাঙ্গুড়া পৌরসভার মেয়র গোলাম হাসনাইন রাসেল বলেন, সরকারের টেকসই উন্নয়নের নির্দেশনা অনুসরণ করে গত অর্থবছরে শহরের আশিভাগ প্রধান সড়ক নতুনরূপে সংস্কার করা হয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন মহল্লায় নতুন নতুন সড়ক নির্মাণ করা হয়েছে। আগামী অর্থবছরে অসম্পূর্ণ সড়কগুলো নির্মাণ ও সংস্কার করার পাশাপাশি শহরের সৌন্দর্যবর্ধনে নজর দেয়া হবে। এছাড়া পৌর এলাকায় নাগরিক সুবিধা আরো বাড়িয়ে দিতে বিভিন্ন প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হবে।

শেয়ার করুন